আপনি কি একা ? বয়স ২৫ পেড়িয়ে গেছে এখনো মেয়েদের সামনে গেলে তোতলান ? নিজের চেহারা নিয়ে হীনমন্যতায় ভুগছেন ? ক্লাসের চিকনা রিপন এর প্রেম কাহিনী শুনলে ওকে থাপরাইতে মন চায় ? তাহলে এই মুভি আপনার জন্য। আপনার জীবনকে বদলে দিবে এই মুভি।

a

Hunterrr মুভি ইনফোঃ
Movie : Hunterrr
Director : Harshavardhan Kulkarni
Staring : Gulshan Devaiah, Radhika Apte, Sai Tamhankar
IMDB Rating – 7
Personal Rating – 8

Hunterrr মুভি রিভিউ

২০০৩ সাল। দেশে তখন সদ্য পশ্চিমা হাওয়া লেগে ছিল। চুলে স্পাইক কাট দেয়া, কালো রঙের লেদার জ্যাকেট, ফাটা জিন্স, ভোতা মাথার বুট জুতো, কালার করা চুল এগুলোর চল শুরু হয়ে গিয়েছিল তখন। ঢাকায় পড়াশুনা করার সুবাদে বন্ধুর সাথে গিয়ে উঠি উত্তরার এক বাসায়। সেই বাসায় আমরা দুজন বাদে আরও একজন বড় ভাই থাকত। সে এক লিজেন্ডারি বড় ভাই। স্টাইল এর এ থেকে জেড পর্যন্ত তার জানা ছিল। জিম করা বডি, লাল রঙের চুল আর টাইগার ভাই এর মত কানের রিং সেসময় তাকে অন্য লেভেল এ নিয়ে গিয়েছিল। স্ত্রি করা সার্ট আর প্যান্ট পরে বাক্স প্যাটরা নিয়ে যেদিন সেই বাসায় উঠি, মুখে একটা একপেশে হাসি দিয়ে সেই ভাই হাত বাড়িয়ে বলেছিলেন, ” Hi, i am Sakib and you need to improve.” মুগ্ধ আমি সেই মুহূর্ত থেকে সেই ভাই এর ছায়ার মত অনুসারী হয়ে উঠি। অন্ধের মত অনুকরন করতাম তাকে। ভাই এর অসংখ্য স্টাইলিস্ট জিনিস পত্রের মধ্যে সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য ছিল তার কুচকুচে কালো রঙের সানগ্লাস। এটি পড়লে তার চোখ দেখা যেতনা। বিশেষ বিশেষ মুহূর্তে তিনি এই সানগ্লাস পরে থাকতেন।

তো সময় বয়ে গেলো। একদিন ভাই পড়াশুনা শেষ করে চাকরি শুরু করল। ধুম করে একদিন বিয়েও করে ফেলল। আমাদের কাছ থেকে বিদায় নিয়ে নতুন সংসার শুরু হল তার। বিয়ের ৩ মাস পর একদিন আমাকে এক রেস্টুরেন্ট এ খেতে ডাকলেন। অনেক দিন পর দুই ভাই একসাথে হয়ে সেই আড্ডা। এমন সময় পাশের টেবিলে ” আজ অনেক গরম লাগছে ” টাইপের দুজন মেয়ে এসে বসল। সাথে সাথে সুড়ুত করে ভাই তার কালো সানগ্লাসটা পরে ফেলল। এরপর শুরু হল তার ধ্যান।
আমি বললাম, ” ভাই, কি দেখো ?
— আহ ডিস্টার্ব করিস না। ফোকাস করতে দে।
ভাইকে ফোকাস করতে দিয়ে আমি খাওয়ায় মনোযোগ দিলাম। প্রায় ১৫ মিনিট পর ভাই বিশাল একটা দীর্ঘশ্বাস ফেলল।
প্লেটে চামুচ রেখে জিজ্ঞাসা করলাম, ” কি হল তোমার? ”
ভাই করুন সূরে বলল, ” বুঝলি সায়েম, বিয়ের ব্যাপারে একটু বেশি তাড়াহুড়া হয়ে গেলো। ”
ভাই এর কথা শুনে আমিও আমার নতুন কেনা কালো সানগ্লাসটা আস্তে করে পরে ফেললাম। ১৫ মিনিট পর আমিও দীর্ঘশ্বাস ছেড়ে বললাম,
” হুম, বিয়ের ব্যাপারে তাড়াহুড়া করা মোটেও উচিত না। ”

এতক্ষনে নিশ্চয়ই বুঝতে পেরেছেন আজকের মুভি রিভিউ এর বিষয় বস্তু কি। মুভির নাম Hunterrr (2015)। পুরাই অস্থির একটা মুভি। কার্ল লুইস, মার্ক লুইস সব ধরনের লুইস কে ছাপিয়ে গেছে মুভির নায়ক। পরিচালক এখানে লুইসগিরিকে মোটামুটি শৈল্পিক পর্যায়ে নিয়ে গেছেন। নায়কের ক্যারেক্টার এ গুলসান জাস্ট টেরিফিক ছিল। আর রাধিকা আপ্তের অভিনয় নিয়ে নতুন করে কি বলব। পুরো ২ ঘণ্টা ২১ মিনিট খালি রস আর রস। স্ট্রং স্ক্রিপ্ট সাথে দুর্দান্ত অভিনয় এবং সাথে বোনাস হিসেবে মেয়ে পটানর সুপার্ব সব উপায়। মুভিতে একটা গান আছে, ” ডোন্ট রিজেক্ট মি, আই আম এ লার্নার।” এপিক একটা গান। কত হাজার বার যে শুনেছি হিসেব নেই। একজন ভয়াবহ মেয়ে এডিক্টেড মানুষ যখন বিয়ের জন্য পাত্রী দেখতে গিয়ে সত্যি সত্যি একটি মেয়ের প্রেমে পরে যায় তখন তার কি হাল হয় তা নিয়েই এই মুভি। মুভির বিষয় বস্তু লুইসগিরির উপরে হলেও এটি একটি সিরিয়াস কমেডি মুভি, কোন বরুন ধাওয়ান বা টাইগার স্রফ এর লুল মুভি নয়। মুভিটি দেখুন তারপর নিজেই হা হয়ে যাবেন।

হ্যাপি ওয়াচিং✌

মুভি রিভিউ লিখেছেনঃ Sayem Chowdhury

Hunterrr (2015) পুরাই অস্থির একটা মুভি - মুভি রিভিউTankiBazzবলিউড মুভি রিভিউHunterrr (2015)
আপনি কি একা ? বয়স ২৫ পেড়িয়ে গেছে এখনো মেয়েদের সামনে গেলে তোতলান ? নিজের চেহারা নিয়ে হীনমন্যতায় ভুগছেন ? ক্লাসের চিকনা রিপন এর প্রেম কাহিনী শুনলে ওকে থাপরাইতে মন চায় ? তাহলে এই মুভি আপনার জন্য। আপনার জীবনকে বদলে দিবে এই মুভি। Hunterrr মুভি ইনফোঃ Movie : Hunterrr Director : Harshavardhan...