Superhero origin Rocket raccoon কেউ তাকে ডাকে রকি কিংবা কেউ ডাকে রেনজার রকেট। কিন্তু মার্ভেল কমিকস জগতে তিনি রকেট র্রাকুন নামেই বেশি জনপ্রিয়তা লাভ করেছে। Rocket raccon মার্ভেল কমিক্সের একজন কাল্পনিক চরিত্র, যার প্রথম প্রকাশ ঘটে ১৯৭৬ সালে প্রকাশিত মার্ভেল প্রিভিউ সিরিজের ৭ নং সংখ্যায়। চরিত্রটির স্রষ্টা হলেন Bill Mantlo এবং Keith Giffen। চরিত্রটির নাম নেওয়া হয়েছে জনপ্রিয় ব্যান্ড The Beatles’ এর গান” Rocky Raccoon “হতে।

Rocket Raccoon

Superhero Origin : Rocket Raccoon

That’s it! You can attack me, you can
call me names, but no one — NO ONE —
touches my blaster!
— Rocket Raccoon

বহুবছর পূর্বে কোন এক অজানা গ্রহেরএকদল অধিবাসী মহাকাশ অভিযানে বের হয়। তাদের উদ্দেশ্য ছিল বসবাসযোগ্য একটি নির্জন গ্রহের সন্ধান করা, যেখানে তারা তাদের গ্রহের নির্বাসিত মানসিকভাবে অসুস্থ লোকদের জন্য একটি Asylum গঠন করবে। তারা Sirius major নামে নক্ষত্রপুঞ্জের পাশে Keystone Quadrant নামের একটি গ্রহের সন্ধান পায়। তারা ঠিক করে ঐ জায়গাটি তারা মানসিকভাবে অসুস্থ লোকদের চিকিৎসার জন্য ব্যবহার করবে। তারা তাদের গ্রহের মানসিকভাবে অসুস্থ লোকদের সেই স্থানে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসে। সেখানে তারা রোগীদের জন্য একটি Asylum তৈরি করে। রোগীদের দেখাশোনা করার জন্য তৈরি করে বুদ্ধিমান রোবট। তাদের আরেকটি উদ্দেশ্য ছিল মানসিক রোগীদের নিয়ে গবেষণা করা, কেন তারা পাগল হয় তা অনুসন্ধান করা।

তারা তাদের গবেষণা চালিয়ে যেতে থাকে। তাদের গবেষণায় উঠে আসে অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য যা তাদের অনেক কিছু জানতে সাহায্য করে। কিন্তু একদিন তাদের গ্রহ থেকে বলা হয়, যেন তারা কাজ গুটিয়ে নিজেদের গ্রহে ফিরে আসে। তাদের এই প্রজেক্টের ফান্ডিং বন্ধ করে দেওয়া হয়। তাই তারা কোন উপায়ন্তর না দেখে তাদের গ্রহে ফিরে যায়। তবে তারা রোগীদের ওখানেই ফেলে যায়। তাদের সাহায্য করার জন্য রোবটদের রেখে যায়। রোগীরা যেন ভবিষ্যতে বাইরের জগত থেকে কোন বিপদের মুখোমুখি না হয় তাই তারা সেই গ্রহসহ পুরো সোলার সিষ্টেম ঘিরে একটি ফোর্সফিল্ড সৃষ্টি করেন, যার নাম দেন The Galacian Wall। এরপর রোবটদের হাতে সব দায়িত্ব দিয়ে তারা ঐ গ্রহ ত্যাগ করেন।

এভাবে বহুবছর কেটে যায়। রোবটরা রোগীদের বিশ্বস্তভাবে সাহায্য সহযোগিতা করতে থাকে। রোগীরা ধিরে ধিরে নিজেদের জগত তৈরি করে ফেলে।তারা নিজেদের নাম দেয় The loonies, তারা এমনকি নিজেদের জন্য আলাদা ধর্মও তৈরি করে ফেলে। তারা যে সন্তান জন্ম দেয়, তারা তাদের পিতামাতার মতোই পাগল হয়ে যায়। আসলে চারপাশের পরিবেশই তাদের পাগল করে তোলে। একসময় রোবটরা ওদের আর সরাসরি সাহায্য করতে চায় না। তাই তারা সেই এলিয়েনদের ফেলে যাওয়া পোষা প্রাণীদের উপর জেনেটিক পরীক্ষা চালায়। এভাবে তারা তৈরি করে প্রাণীদের একটি নতুন জাত যারা সাধারণ প্রাণীদের থেকে উন্নত ও বুদ্ধিমান। এভাবেই সৃষ্টি হয় রকেট র্রাকুনের। রোবটরা প্রাণীদের হাতে রোগীদের দায়িত্ব দিয়ে তারা গ্রহটির অন্য প্রান্তে বসবাস শুরু করে। ক্রমে ক্রমে প্ল্যানেটটির নাম হয়ে যায় হাফওয়ার্ল্ড। এর অর্ধেক অংশে জীব ও অর্ধেক অংশে রোবটরা বসবাস শুরু করে বিধায় গ্রহটির নাম হয়ে যায় হাফওয়ার্ল্ড। রোবটরা প্রাণীদের জন্য অস্ত্র ও আনুসঙ্গিক জিনিস তৈরি করে দিতে থাকে। ধিরে ধিরে প্রাণীরাও নিজেদের জন্য আলাদা সমাজ গঠন করে। রকেট র্রাকুন সেখানে Law enforcement officer হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে থাকে। পরবর্তীতে Toy war নামে এক যুদ্ধের পর রকেট র্রাকুন গ্রহটি ছেড়ে মহাকাশে যাত্রা শুরু করে এবং একসময় Guardian of the galaxy টিমে যোগ দেয়।

Power and Ability :
রকেট র্রাকুনের শারিরীক ক্ষমতা একটি সাধারণ র্রাকুন এর মতোই। তবে হাফওয়ার্ল্ডে থাকাকালীন সময় প্রাপ্ত ট্রেনিংয়ের ফলে তার দক্ষতা সাধারণ র্রাকুনের চেয়ে বেশি। এছাড়াও সে একজন দক্ষ পরিকল্পনাবিদ। তার ক্ষমতার মধ্যে রয়েছে:
1. Master tactician and field commander
2. Expert marksman and sniper
3. Accomplished starship aviator
4. Normal-physical attributes of an Earth raccoon

Powergrid :
মার্ভেলের অফিসিয়াল ওয়েবসাইট অনুযায়ী Rocket raccon এর ক্ষমতা :
বুদ্ধিমত্তা- ০৪/০৭
শক্তিমত্তা- ০১/০৭
দ্রুততা- ০৩/০৭
স্থায়িত্ব- ০২/০৭
তেজ – ০১/০৭
আক্রমণ দক্ষতা- ০৪/০৭

একনজর-
নাম- রকেট র্রাকুন
ছদ্মনাম – রকি র্রাকুন, রেঞ্জার রকেট, শার্পশুটিং স্পেস র্রাকুন
নাগরিকত্ব- হাফওয়াল্ডারস
লিংগ- পুরুষ
উচ্চতা- ৪ ফুট
ওজন- ২৫ কেজি
চোখ- বাদামী
চুল- কালচে বাদামী এবং সাদা
জন্মস্থান -হাফওয়ার্ল্ড

Trivia :
১. রকেট র্রাকুন অরিজিনাল গার্ডিয়ান অফ দ্যা গ্যালাক্সির সদস্য নয়। সে পরবর্তীতে টিমে যোগ দেয়।

২. মার্ভেল কমিক্সের যে কয়েকজন ক্যারেক্টার Groot এর কথা বুঝতে পারে, রকেট তাদের মধ্যে অন্যতম।

৩. এ পর্যন্ত দুইটি মুভিতে রকেটকে দেখা গেছে। যথা গার্ডিয়ান অফ দ্যা গ্যালাক্সি ভলিউম ১ ও ২। চরিত্রটির কন্ঠ দিয়েছেন
Bradley Cooper।

৪. সিনেমায় রকেটের মুভমেন্ট ও মডেলের জন্য ব্যবহৃত হয়েছে সত্যিকারের একটি র্রাকুনকে, যার নাম Oreo।

৫. কমিক অভিষেকের প্রথম ত্রিশ বছরের মধ্যে কেবল দশটি কমিক্সে রকেট র্রাকুনের আবির্ভাব ঘটে।

– ধন্যবাদ।

সুপারহিরো অরিজিন লিখেছেনঃ Rafiul Bari

Rocket Raccoon - একজন অভিজ্ঞ স্টারশিপ পাইলট, প্রকৌশলী এবং প্রযুক্তিবিদTankiBazzসুপারহিরো অরিজিনRocket Raccoon - একজন অভিজ্ঞ স্টারশিপ পাইলট,প্রকৌশলী এবং প্রযুক্তিবিদ
Superhero origin Rocket raccoon কেউ তাকে ডাকে রকি কিংবা কেউ ডাকে রেনজার রকেট। কিন্তু মার্ভেল কমিকস জগতে তিনি রকেট র্রাকুন নামেই বেশি জনপ্রিয়তা লাভ করেছে। Rocket raccon মার্ভেল কমিক্সের একজন কাল্পনিক চরিত্র, যার প্রথম প্রকাশ ঘটে ১৯৭৬ সালে প্রকাশিত মার্ভেল প্রিভিউ সিরিজের ৭ নং সংখ্যায়। চরিত্রটির স্রষ্টা হলেন Bill...